মুক্তি
নির্মলেন্দু কুণ্ডু

বলতে পারো, ভাগ করবে কে ?
আকাশ-বাতাস-জলের মাঝে টানবে সীমা কে ?
ঐ যে দেখো—
লাল পলাশ আর কৃষ্ণচূড়ার দল,
পার হয়ে যায় তোমার দেওয়া কাঁটাতারের জাল !
কিংবা ধরো রামধনুটা উঠলো আকাশে
তোমার আকাশ – আমার আকাশ, দাও তো দেখি মেপে ৷

পারবে না তো ?
ঠিক বুঝেছি, অঙ্কে তুমি কাঁচা,
তবুও কেন আজকে এমন বাঁচার জন্য বাঁচা ?
এপারে আর ওপারেতে নিত্য চলে গুলি,
ওদের মাঝে নৌকা হয়ে আমরা কেন দুলি ?
সব জায়গায় আমরা দেখি পাই যে কেবল ফাঁকি,
সবার আগে আমরা মানুষ, ভুলেই গেছো নাকি !
এপার বলে ওপারে ভাই আমার সাকিন বাঁধা,
ওপার দেখায় এপার — এ যে মস্ত একটা ধাঁধা !
সত্যি করে বলো, এ কেমন স্বাধীনতা ?
দেশে থেকেও দেশবাসী নই — এ তো অবাক কথা !
আমরা যে চাই তুলতে মাথা আলোর ঠিকানায়,
বিরহের ঐ বাঁশি থেমে বাজবে খুশির সানাই ৷

Spread the Kabyapot

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *