তোমাতে’ই মিলাবে
<মনিরুজ্জামান প্রমউখ>
————————–
স্মরণে’র কূপ খনন করে-
রাখি-নি, যে- ভড়কে যাবো !
ঝিম মেরে বসে যাওয়া-
স্মৃতি-কে অ-স্বীকার কই করি ?

সময়ে’র পার্বণে সেও ফিরবে-
জানি, মধু-বান অর্পণে ।
কিন্তু-
এমন দিল-খোয়ানো খবর,
কে দেয়- মিঠাকরি ?

যুগে’র অপেক্ষায় যে থাকে,
ফুল-নন্দন বাসরে’র মজমা হতে !
এক-দিন আচমকা সে- এসে বলে,
হৃদয়ে’র ঘর নিয়েছি, খুঁজে !
দেনা-পাওনা’র হিসেব কী- আছে,
যে- বুঝিয়ে দিতে হবে ?

বলেছি,
সুখে’র পালকে পল্লব-বহর যেনো-
ছুঁয়ে থাকে, তোমার মোকামে ।
আমার আবির্ভাব- পৃথিবী’র রূপ-রং
বদলে দিক বা- না দিক, নিরবে ।

তোমার বিরতি’র অন্তর্ধান- তোমাকে,
মন-রাজস্ব বিনোদ করুক, সমানে ।
আমার সারা- অন্তর-জানকি-তে
তার দয়া’র দলিল- তোমাতে’ই মিলাবে ।।
——————-

মিথস্ক্রিয়া
———————————
মিষ্টি যোগে’ই দুধে’র আহ্লাদ বাড়ে ।
যদি- চুবানো’র ধর্ম পালন করা লাগে ।
নয়-তো দুধ আর-রুটি’র মিথস্ক্রিয়া জিহ্বা’র হরফ বদলে ছাড়ে ।।
———————

অন্ধ-কূপ
————————————
কাজে’র কথা- লিখো কই ? সব’ই-তো অদ্ভুত আনাড়ি খই ! মিথ্যে সই দিয়ে- সোনা’র অক্ষরে নাম লিখিয়ে নিলে’ই কী- পেয়ে যাবে- দিল-জপা খ্যাতি’র কুপন ? ভাঙিয়ে নিলে’ই মুদ্রা- কম হয়ে, যায়-না । ক্ষয়ে’র ইতিহাস- জয়ে’র সূচনা’র পাড় । নীল নেত্রে- তার-  দ্বীপ গড়ে, বিদ্রোহী । এক-দিন প্রভাবিত আলো হারাবে- তার রং । মৌলিক পাবে, তার- হারানো সুর । তখন কী- দাড়িপাল্লায় খসাবে- অর্জিত তীর ? হুট করে আকাশে’র মালিকানা- দখল করতে গেলে, জমিন তার- শোধে’র কাঁকর বিছাবে’ই । রইতে গেলে- সইতে হয় । এই ভেবে, ভাবো কেনো- রইতে’ই হয় ??
———————–

Spread the Kabyapot

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *