ফুলেরও পাপড়ি মাঝে রাই দোলে,

কানু বিহনে রাই আঁখি নাহি খোলে।

কানু চাতুরী করিয়া রাইয়ের নিকট,

হইলো মা যশোদার সনে প্রকট।

রাই মৃদু মৃদু হাসিছে দুলনা দুলে,

কানু আইলো সেথায় খেলার ছলে।

রাই দিলেম স্পর্শ করিয়া তোমারে,

আঁখি খুলি একটিবার দেখোহ আমারে।

রাই তখন পাতিয়া আঁখি দেখিলো কি মধু!

আহা এমনও রূপ দেখিনাই মোর বধু।

কানু বলে মনে মনে রাই তোমার দরশনে,

ছটফট করেছি আমিও নন্দেরই কাননে।

ছল করিনু তাই মা যজোদার আলয়ে,

উপাই নাহি দেখি মা আইলেন মোরে লয়ে।

আজ বর্ষানা তোমার আগমনে অনন্দিত,

বৃষভানু;কৃর্তিদা সুন্দরী দোঁহে মোহিত।

রাই তো মোজিলো কেবল কানু সন্নিকটে,

বাকি আর সবই কিছু নাহি ধ্যান যাহা ঘটে।

রাই কানু দোঁহে আজি মিলন বেলায়,

বলো সবে উচ্চস্বরে জয় রাধে জয় কানাই।

Spread the Kabyapot

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *