• Fri. Aug 19th, 2022

আমার দেশ – ঘনশ্যাম কল্পতরু

ByKabyapot

Oct 27, 2020

 কবি পরিচিতি :

 কবির নাম—–ঘনশ্যাম কল্পতরু। বয়স 53 বছর। হাওড়া জেলার শ্যামপুর এর অনন্তপুরে বাড়ি। প্রাথমিক শিক্ষা মন্ডল পাড়া প্রাথমিক বিদ্যালয়। মাধ্যমিক অনন্তপুর সিদ্ধেশ্বরী হাই স্কুল। উচ্চমাধ্যমিক শ্যামপুর সিদ্ধেশ্বরী কলেজ। জীব বিদ্যা স্নাতক মেদিনীপুরের তাম্রলিপ্ত মহাবিদ্যালয়। উলুবেড়িয়া কলেজে বিএড। এমএসসি প্রাণিবিদ্যায়। হাওড়া হোমস আইটিআই কলেজের ছাত্র। চিকিৎসা বিদ্যা অর্জন করেছেন। বিদ্যালয় জীবন থেকে সাহিত্য চর্চা শুরু। পথের দাবী , সাহিত্য সেবক, কৃশানু ,শব্দের ঝংকার, সুস্বাস্থ্য ,মহুয়া, স্বপ্ন, আগুনের ফুলকি ,ভোরের আলো, আন্তর্জাতিক অভিমুখ আলোর ফুলকি ,আনন্দমুখর সাহিত্য পত্রিকা এরকম পশ্চিমবঙ্গে ও পশ্চিম বাংলার বাইরে বহু পত্র-পত্রিকায় তার লেখা নিয়মিত প্রকাশিত হচ্ছে। সারা বাংলা কবিতা প্রতিযোগিতার প্রথম হয়েছেন ।পেয়েছেন “কবিরত্ন ” সাহিত্য সম্মান’ কবিতা ছড়া গল্প প্রবন্ধ লিখে চলেছেন গত 36 বছর ধরে পানিত্রাস উচ্চ বিদ্যালয় শিক্ষকতা করছেন, দুই দশকেরও বেশি সময়।

কবিতা : আমার দেশ
*******************
জলভরা মেঘ
গাল ভরা হাসি
দেখতে ভালোবাসি।
তোমার জন্যে বারে বারে
ফিরে ফিরে আসি ,
এই বাংলার গ্রাম পথঘাট ভালোবাসি।
এখানে আমার বসত বাটি জন্মভিটা
ভাই বোন আর মা মাসি ,
হৃদয়ের প্রেম পিরিতি রাশি রাশি।
এ আমার বাংলা ভূমি
এ আমার ভারত বর্ষ
জীবনের আনন্দ আর হর্ষ।
আমি গড়বো নতুন বাংলা
আমার সোনার ভারত বর্ষ
ভাইবোনেরা থাকুক নিয়ে হর্ষ ।
শত দুঃখ বিমর্ষেও
আমি আমার দেশে
মন হরষে আছি ভালোবেসে।
শত শহীদের মাতৃভূমি
আত্ম চেতনার এই দেশে
আছি কৃষক-শ্রমিক মানুষকে ভালোবেসে।
এদেশেই নানক কবীর
গৌর এবং বুদ্ধ
বিশ্বকে গড়বেই করে শুদ্ধ।
বিশ্বের দিকে দিকে হিংসা হানাহানি
সুখ-শান্তি কে করেছে রুদ্ধ
প্রেমপ্রীতি দিয়ে রুখে দেবো যুদ্ধ।
পশ্চিমে দেখি দ্বেষ বিদ্বেষ
ধর্মের অহমিকা
অর্থ মোক্ষ কাম আধুনিকা।
ওরা সাম্যের নামে
অসাম্য বড়াই হানে
ধর্মের নামে কেচ্ছা জানে।
আমরা জানি—————-
জ্ঞান-বিজ্ঞান আর বিবেক বাণী
রবির কিরণে জয়ী হবে ভারত রানী।
এদেশের অন্তর- আত্মা
পৃথিবীর শ্রেষ্ঠ জানি
শান্তি পেয়েছে সব দুষ্কৃতী আর অভিমানী।
এ দেশ থেকেই ছড়িয়ে যাবে
জ্ঞান রশ্মির ছটা ,
দূরীভূত হবে কুসংস্কার ঘনঘটা।
মধ্যপ্রাচ্য আর পশ্চিমে
ধর্মের কুসংস্কার দূর হবে
পিছে নাহি রবে।
এদেশের মাটি স্বর্ণরেণু
চিন্তা-চেতনায় জ্ঞানপীঠ হবে
বিশ্বকে বিশুদ্ধ করে জাগ্রত রবে।
তোমারি আকাশে তোমারি বাতাসে
মোদের সকল চিন্তার জমি
তোমারি ভূমিতে প্রণতঃ নমি।
এ দেশ মোদের গর্ব জানি
চিরকালের মহাতীর্থ ভূমি
হে মহান জন্মভূমি।
___________________________
Spread the Kabyapot

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আপনার প্রদেয় বিজ্ঞাপনের অর্থে মুদ্রিত কাব্যপট পত্রিকা প্রকাশে সাহায্য করুন [email protected]