ভারতের প্রথম শহীদ প্রফুল্ল চাকী- ঋদেনদিক মিত্রো রচিত


Advertisements

ভারতের প্রথম শহীদ প্রফুল্ল চাকী   
        ————————–
        ঋদেনদিক মিত্রো

  ( প্রফুল্ল চাকী : জন্ম : 10 ডিসেম্বর 1888 বগুড়া জেলা, বাংলাদেশ, তৎকালীন অখন্ড ভারত, মৃত্যু  2 মে 1908 মোকামা ঘাট  ) 
——————————————-

( A Bengali Poem on The First Martyr of India,  Prafulla Chaki,  in the British Period. : Ridendick Mitro,  India )

Advertisements

[ মুক্ত ঘূর্ণন ছন্দে মিশ্র পংক্তির অন্তমিল ]

তোমাকে বা তোমাদের,  
যারা নাকি বিপ্লবী,  
তাদের কি লেখা যায় কবিতায়? 
ইতিহাস মানে যদি
অতীতের সুন্দর,  
তাহলে তোমরা সেই 
মর্যাদা পায়,  

তোমাকে বা তোমাদের, 
যারা নাকি বিপ্লবী,  
তাদের কি লেখা যায়  কবিতায়?

উনিশ শ আট সালে দোসরা মে, 
কুড়ি তো পেরোওনি তখনি,
সতেরো  বৎসর বয়সের —
সঙ্গী ক্ষুদিরাম বসুকে নিয়ে 
নিজেরাই নিজেদের মতনই  

যুদ্ধেই নেমে গেলে সহজে, 

জীবনের কত চাওয়া,  
কত কী হয়নি পাওয়া, 
এসব সরিয়ে দিয়ে — 

স্বাধীনতা শব্দটা ছিল মগজে !  

যুদ্ধেই নেমে গেলে সহজে — 

ইংরেজি সিপাহীরা,   
পাচ্ছে না কোনো থৈ, 
দামাল ছেলে দুটির জন্য, 

তুমি তার একজন,  
কুড়ির মহাজীবন 
  বাঙালি ও ভারত হয় ধন্য,  

হে বিপ্লবী দল,  
চোখ ভরে আসে জল,  
তোমরা তো আমাদেরই জন্য, 

হিমশিম খেয়ে যায় 
ইংরেজ পুলিশের দল,  
বাঙালি সন্তানের  
যুদ্ধে কী কৌশল,  

একটি রিভলভার দিয়ে — ,
তছনছ করে দেয়  
ইংরেজ পুলিশের সব চেষ্টা, 
  কী ভাবে দিচ্ছে নাচিয়ে,  

বলতে-বলতে ওই আহত শরীরে  
   নিজের শেষ বুলেট —
   ওটা দিয়ে মারো নিজেকে, 

জীবনের সব ভাষা, 
স্বপ্ন ও ভালোবাসা,  
   রেখে গেলে এই  পৃথিবীতে ! 

ভারতের স্বাধীনতা যুদ্ধে —
     প্রথম শহীদ তুমি,  

     কবিতায় তোমায় ডাকি,

হে মহা বিপ্লবী প্রফুল্ল চাকী,  

ডাক নাম ছিল ফুলো, 
না বলে ছিল না ভুলো, 
  মেধা আর স্মৃতিতে 
       প্রখর গভীর, 

হতো বড় চাকরি,  
  আর সুখি সংসার,   
সব ফেলে হয়ে গেলে 
    অকালে স্থবির ! 

দৃশ্যটা আজ ভাবি, 
   কল্পনাতেই জাগি, 

কী ছিল সেদিনের যুদ্ধ,  

দৃশ্যটা দেখে হই মুগ্ধ,

তোমরা জানিয়ে গেলে 
   আমারাও হতে পারি 
        অন্যায়ে প্রতিবাদে 
          তোমাদের ফেলে রাখা 
           বাদবাকি যুদ্ধের সাথী, 

চোখ ভেসে যায়,  
   তোমার জন্ম দিন 
      ও মৃত্যু-দিবস —
        সারা দেশকে জাগায়,

নত হয়ে কান্নায়  জানাই স্যালুট 
    
কল্পনা-নেত্রে কত ছবি আঁকি,

     হে বীর,  হে আলো,  
     হে পথ,  হে ভালো,  

     প্রফুল্ল চাকী !

                  ***  

Advertisements

—————————————- 

  ( 20:06 রাত্রি,  9 ডিসেম্বর 2020,  Ridendick Mitro,  kolkata,  India )  

বিঃদ্রঃ :— ঋদেনদিক মিত্রো ( Ridendick Mitro ),   পেশা : ইংরেজি ও বাংলাভাষায় কবি -ঔপন্যাসিক-নিবন্ধকার- গীতিকার (আলাদা ভাবে দুটো ভাষায়,  অনুবাদ নয় ),   এবং একটি বিশ্বজাতীয় সংগীত ” World anthem — we are the citizen of the Earth, ”  ও  ” corona anthem 2020 official bengali song, ” ( আগ্রাসনের নেশার সাথে হিংসা সীমাছাড়া ) প্রভৃতি বিশেষ ধরণের সংগীতের রচয়িতা ! 2020 সাল পর্যন্ত বিভিন্ন প্রকাশনী থেকে দুটি ভাষায় গ্রন্থ সংখ্যা আঠেরো -উনিশ টি !
           ——————
শহীদ প্রফুল্ল চাকীর ওপর আরো অনেক কবিতা লিখেছেন আগে  বিভিন্ন ভাবনায় ,  তবে কবির এটি সদ্য লেখা !

Advertisements
Advertisements

One Comment Add yours

  1. Subrata Chaki বলেছেন:

    On behalf of Shahid Prafulla Chaki Memorial Committee, the has been appreciated with thanks.

    Like

মন্তব্য করুন

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  পরিবর্তন )

Google photo

You are commenting using your Google account. Log Out /  পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  পরিবর্তন )

Connecting to %s

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.